জুন ১৬, ২০২৪

সড়ক দুর্ঘটনায় ভারতের টিভি অভিনেত্রী বৈভবী উপাধ্যায় (৩৮) মারা গেছেন। ভারতের পাঞ্জাব ও হরিয়ানা রাজ্যের রাজধানী চণ্ডীগড়ের কাছে ঘটে এ দুর্ঘটনাটি।

জনপ্রিয় টিভি ধারাবাহিক ‘সারাভাই ভার্সেস সারাভাই’–এ জেসমিন চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকমহলে আলোচিত হয়েছেন অভিনেত্রী। ২০২০ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত বলিউডের ‘ছপাক’ সিনেমাতেও দেখা গেছে তাকে।

পাহাড়ি রাস্তায় গাড়ি খাদে পড়ে অভিনেত্রীর মৃত্যু হয়। সেই সময় অভিনেত্রীর সঙ্গে ছিলেন তার হবু স্বামী আদিত্য সিং রাজপুতও। অভিনেত্রীর মৃত্যুর খবর জানিয়েছেন ‘সারাভাই ভার্সেস সারাভাই’-এর প্রযোজক জেডি মাজেঠিয়া। সোমবারেই মৃত্যু হয় আদিত্য সিং রাজপুতের। একদিন পরেই ফের মৃত্যু সংবাদে শোকবিহ্বল বলিউড।

জেডি টুইটে লেখেন, ‘দুঃসংবাদ শুনে স্তম্ভিত। খুব ভালো ছিলেন বৈভবী। প্রাণশক্তিতে ভরপুর ছিলেন তিনি। আমার স্মৃতিতে ধারাবাহিক ‘সারাভাই ভার্সেস সারাভাই’-এর ‘জ্যাসমিন’ হয়েই থেকে যাবেন। জীবন ভীষণ অনিশ্চিত, আবারও প্রমাণিত।’

বৈভবীর মৃত্যুসংবাদের রেশ কাটার আগেই ফের দুঃসংবাদ বলিউডে। মাত্র ৫১ বয়সেই মারা যান নীতেশ পাণ্ডে! হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান তিনি। নীতেশ ‘ওম শান্তি ওম’-এ শাহরুখ খান এবং ‘খোসলা কা ঘোসলা’য় অনুপম খের, বোমান ইরানির সঙ্গে অভিনয় করে বিখ্যাত হয়েছিলেন। নয়ের দশকের গোড়ায় মঞ্চাভিনয় দিয়ে অভিনয় জীবন শুরু। জনপ্রিয়তা পান ধারাবাহিক ‘তেজস’-এর হাত ধরে। ওই ধারাবাহিকে গোয়েন্দা চরিত্রে দেখা গিয়েছিল তাকে। এর পরে, নীতেশ ‘অস্তিত্ব এক প্রেম কাহানি’, ‘দুর্গেশনন্দিনী’, ‘মঞ্জিলে আপনি আপানি’ এবং আরও অনেক ধারাবাহিকে অভিনয় করেন।

শেয়ার দিয়ে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *