জুন ১৭, ২০২৪

আর্থিক প্রতিবেদনে বড় ধরনের অসংগতি থাকায় পার্কওয়ে প্যাকেজিং অ্যান্ড প্রিন্টিং পিএলসির কোয়ালিফাইড ইনভেস্টর অফার (কিউআইও) আবেদন বাতিল করেছে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। সম্প্রতি এ সংক্রান্ত চিঠি দিয়ে কোম্পানি কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছে বিএসইসি।

তৈরি পোশাক খাতের কোম্পানি পার্কওয়ে প্যাকেজিং অ্যান্ড প্রিন্টিং পিএলসি ডিবিএল গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান। এটি তৈরি পোশাক শিল্পের জন্য সুতা তৈরি করে। এটি ২০০৮ সালে বাণিজ্যিক উৎপাদন শুরু করে। বর্তমানে দিনে ৩৫ হাজার পিস কার্টুন সুতা উৎপাদন করে।

কোম্পানি এর আগে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) এসএমই প্ল্যাটফর্ম থেকে কিউআইওর মাধ্যমে নির্ধারিত মূল্য পদ্ধতিতে পাঁচ কোটি টাকা সংগ্রহের জন্য বিএসইসির কাছে আবেদন করেছিল। কোম্পানিটি কার্যকরী মূলধন এবং কিউআইওর খরচ মেটাতে তহবিল ব্যবহার করতে চেয়েছিল।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে কোম্পানির একজন শীর্ষ কর্মকর্তা বলেছেন, চলতি বছরের জুনের পরে আবার কিউআইওর জন্য আবেদন করতে চান।

বিএসইসির তথ্যমতে, পার্কওয়ে প্যাকেজিং ২০২২ সালের জুলাই থেকে ডিসেম্বর সময়ের জন্য আর্থিক বিবৃতি জমা দিয়ে কিউআইও এর জন্য আবেদন করেছিল, তাও কোনো ডকুমেন্ট ভেরিফিকেশন সিস্টেম (DVS) নম্বর ছাড়াই। শুধু তাই নয়, আর্থিক প্রতিবেদনও যাচাই না করেই। তাই আবেদনে সম্মতি দেয়নি।

এছাড়া বিএসইসি দেখতে পেয়েছে যে, পার্কওয়ে প্যাকেজিং ব্যাংক থেকে ৩৭ কোটি ৩৬ লাখ টাকার ঋণ নিয়ে তার সহযোগী প্রতিষ্ঠানকে ঋণ দিয়েছে ৩২ কোটি ৯ লাখ টাকা। এতে ব্যাংকে কোম্পানির মোট ৭ কোটি ২৭ লাখ টাকা নগদ রয়েছে।

কোম্পানির তথ্যমতে, ৩১ ডিসেম্বর ২০২২ সমাপ্ত বছরে কোম্পানির গ্রস প্রফিট ১৪ দশমিক ২৩ শতাংশ থেকে ১৮ দশমিক ৪৮ শতাংশ বেড়েছে। এতে কোম্পানি কর্তৃপক্ষ মুনাফা অতিরিক্ত দেখিয়েছে। পাশাপাশি কমিশনের পর্যবেক্ষণে এসে যে, তিন বছরে কোম্পানির পরিশোধিত মূলধন ৪৫ লাখ টাকা থেকে অস্বাভাবিকভাবে বাড়িয়ে ৬০ লাখ টাকায় উন্নীত করা হয়েছে। তারপরও কোম্পানিটি তার সম্পদ, ইক্যুইটি, অবমূল্যায়ন-অবমূল্যায়ন এবং প্রশাসনিক ব্যয়কে অতিমূল্যায়িত করেছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

শেয়ার দিয়ে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *